Birthday Gift idea

জন্মদিনে উপহার দেওয়ার মতো বই: কার জন্মদিনে কোন বই

জন্মদিন সবার জীবনের অন্যতম আনন্দের দিন। এই দিনটি আমাদের প্রিয় বন্ধু, পরিবার এবং প্রিয়জনদের জন্য খুবই স্পেশাল। জন্মদিনটা স্বরণীয় করার জন্য প্রিয়জনকে স্মরণীয় করে রাখার মতো উপহার দেওয়া খুবই গুরুত্বপূর্ণ। তবে অন্যান্য উপহার যেমন- জামা-কাপড়, কসমেটিকস প্রডাক্ট, খেলার সামগ্রী, ইলেকট্রনিক গ্যাজেট এর পাশাপাশি উপহার দেওয়া মতো বই হতে পারে সকলের প্রথম পছন্দ। বাছাই করে “জন্মদিনে উপহার দেয়ার মতো বই” যদি উপহার হিসেবে তুলে দেওয়া যায় তাহলে সেটিই হতে পারে জন্মদিনের সেরা উপহার। এটি এমন উপহার যার সাথে অন্য কোন উপহারের তুলনা হয়না। এই ব্লগ পোস্টে আমরা জানবো কোন বইগুলো “জন্মদিনে উপহার দেয়ার মতো বই” হিসেবে সেরা উপহার হতে পারে।

দ্য গ্রেট গ্যাটসবি – এফ. স্কট. ফিটজিরাল্ড

“দ্য গ্রেট গ্যাটসবি” (The Great Gatsby) একটি মহান উপন্যাস যা মার্ক ফিটজজেরাল্ড দ্বারা রচিত হয়েছে। এটি 1925 সালে প্রকাশিত হয়েছে এবং এটি আমেরিকান সাহিত্যের সর্বকালের সেরা উপন্যাসগুলির মধ্যে পরিগণিত। উপন্যাসের মূল কাহিনীটি নাইট জেয়র্ডান কারের চারপাশে ঘেরা সমাজের জীবনধারার উপর ভিত্তি করে। প্রধান চরিত্র জে গ্যাটসবি, যে একজন রহস্যময় ও ধনী ব্যবসায়ী। যার ভাবমূর্তি বিদেশের দেশে অবস্থিত হলেও তাঁর বিলাসিতা ও অপূর্ণতা দ্বারা আবদ্ধ হয়ে থাকে। বইটি থেকে জে গ্যাটসবির মতো লোকের ধনী এবং পরিবার কেমন অপূর্ণ স্বপ্নের পেছনে দৌড়ায় এবং সমাজের প্রতিষ্ঠানগুলির ভুল মর্যাদা নিয়ে চিত্রণ পাই।

বইয়ের নাম: দ্য গ্রেট গ্যাটসবি
লেখক: এফ. স্কট. ফিটজিরাল্ড
অনুবাদক: রেজবিন নাহার মোনালিসা
বইটি পাওয়া যাবে: এখানে

জন্মদিনের উপহার – হুমায়ূন আহমেদ

“জন্মদিনের উপহার” হুমায়ূন আহমেদ এর একটি স্মরণীয় উপন্যাস, যা তাঁর সাহিত্যি কর্মকে অত্যন্ত সুস্পষ্টভাবে প্রতিষ্ঠান করেছে। উপন্যাসে পরিবারের একজন সদস্যের জন্মদিনের দিনটি আসে এবং তাকে পরিবারের সদস্যরা একটি বিখ্যাত কবিতার বই উপহার দেয়। উপন্যাসটিতে পরিবারের সদস্যদের মধ্যে বিভিন্ন মতামত এবং সংঘাতসহ তাদের সম্পর্কের পরিবর্তনের কথা ফুটে ওঠে। প্রতিটি চরিত্রের মাধ্যমে বর্ণিত হয় সম্পর্ক, আন্তরিকতা, মোহনীয়তা এবং মানবিকতা। “জন্মদিনের উপহার” বইটি মাধ্যমে পাঠকদেরকে আত্মীয়তা, পরিবার এবং সম্পর্কের মূল্যবোধ জাগ্রত করে তোলে।

বইয়ের নাম: জন্মদিনের উপহার
লেখক: হুমায়ূন আহমেদ
বইটি পাবেন: বইয়ের লিংক

জন্মদিনে – রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর

বইয়ের নাম: জন্মদিনে
লেখক: রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর
বইটি পাওয়া যাবে: এখানে

দ্য ডায়েরি অভ এ ইয়ংগার্ল – অ্যানা ফ্রাঙ্ক

জন্মদিন টা যদি কোন মেয়ের হয় তাহলে বইটি তাকে দিতে পারেন)। “দ্য ডায়েরি অভ এ ইয়ংগার্ল” (The Diary of a Young Girl) বইটি একটি স্মৃতিচিত্র। এটি বাণী রাখে একটি তরুণ মেয়ের প্রতিবেশনা হিসাবে, যা নাজির সময়ে হিটলারের যুদ্ধের দিনগুলির সময়ে লিখিত। যখন তিনি তার দুঃখজনক অভিজ্ঞতা এবং স্বপ্ন প্রদর্শন করেন, তখন পাঠকদের জীবনের মধ্যে তার গল্পের মাধ্যমে একটি উৎসাহ এবং শক্তির আলো প্রসারিত হয়। দ্য ডায়েরি অভ এ ইয়ংগার্ল হয় সুস্বাদু কথা, প্রেম, সংসারের ব্যাপার এবং সত্যিকারের মধ্যে কঠিন সময়ের উপস্থাপনা। এটি একটি শিক্ষা যা আমাদের মানবতার মধ্যে একটি অনুরোধের মত আলোকিত করে।

বইয়ের নাম: দ্য ডায়েরি অভ এ ইয়ংগার্ল
লেখক: অ্যানা ফ্রাঙ্ক
ভাষা: বাংলা

টু কিল এ মকিংবার্ড – হারপার লী , খালেদ হাসান (অনুবাদক)

টু কিল আ মকিংবার্ড সেই বইগুলির মধ্যে একটি যা প্রায় প্রত্যেকেই তাদের জীবনের কোনও না কোনও সময়ে পড়ে। বইটি অ্যাটিকাস ফিঞ্চ সম্পর্কে, যিনি তার শারীরিক ক্ষমতার চেয়ে নৈতিকতার কারণে একজন অপ্রচলিত নায়ক এবং রোল মডেল হিসাবে আবির্ভূত হন। নৈতিকতার বিষয়বস্তু পুরো উপন্যাস জুড়ে স্পষ্ট, বিশেষ করে ধর্ম এবং পাপের উপলব্ধি সম্পর্কিত। মিসেস ডুবোসকে নিন, একজন পুনরুদ্ধার করা মরফিন আসক্ত: তিনি প্রতিজ্ঞা করেছেন যে তিনি কিছুই না দেখে মারা যাবেন। তিনি একজন মুক্ত মানুষ হওয়ার তার নিজের স্বপ্ন অনুসরণ করছেন কারণ তিনি গভীরভাবে জানেন যে এটি সঠিক।

বইয়ের নাম: টু কিল এ মকিংবার্ড
লেখক: হারপার লি
ভাষা: বাংলা

প্রাইড এন্ড প্রেজুডিস – জেন অস্টিন , বদরে আলম খান (অনুবাদক)

১৮১৩ সালে এর সাফল্যের পর থেকে, প্রাইড অ্যান্ড প্রেজুডিস ইংরেজি ভাষার অন্যতম জনপ্রিয় উপন্যাস হিসেবে রয়ে গেছে। এলিজাবেথ এবং তার গর্বিত সুন্দরী মিস্টার ডার্সির মধ্যে রোমান্টিক সংঘর্ষ, সভ্য স্প্যারিংয়ের একটি দুর্দান্ত অভিনয় ফুটে ওঠে। এই বইটিকে রিজেন্সি ইংল্যান্ডের আচার-ব্যবহারে সবচেয়ে দুর্দান্ত কমেডি করে তোলে।

বইয়ের নাম: প্রাইড এন্ড প্রেজুডিস
লেখক: জেন অস্টিন
ভাষা: বাংলা

টাইম মেশিন – এইচ জি ওয়েলস

এটি কেবল একটি বই নয়, এটি একটি কল্পনার জগত। আপনি যদি বৈজ্ঞানিক কল্পকাহিনী পড়তে ভালোবাসেন তবে এটি মিস করবেন না। অন্যতম সেরা সাই-ফাই থ্রিলার গল্প। বিজ্ঞানের সত্যতা এবং তত্ত্বের সূচনার সাথে গল্পটি এগিয়ে যায় প্রথমে এটিকে বিজ্ঞানের সাথে অত্যধিক বোমাবাজি বলে মনে হয়। পরে অনেক কাল্পনিক প্রাণীর সাথে পরিচয় করিয়ে দিয়ে তারপর শুরু হয় থ্রিলার প্লট। এই বইটি পড়ার সময় আপনার মনে হবে আপনি এক দুঃসাহসিক কাল্পনিক ভ্রমণে আছেন।

বইয়ের নাম: টাইম মেশিন
লেখক: এইচ. জি. ওয়েলস
ভাষা: বাংলা

পার্থিব–শীর্ষেন্দু মুখোপাধ্যায়

এই বইটিকে মহাকাব্যিক বললেও ভুল হবে না। দৈনিক প্রত্যেক পরিবারে কতশত টানাপোড়েন লেগে থাকে তার ঠিক নাই। স্কুল শিক্ষক ও পূর্ববঙ্গের উদ্বাস্তু বিষ্ণুপদের পরিবারও এই টানাপোড়েনের বাইরে নয়৷ ভীষণ অভাবের সংসারে গ্রামের সবাইকে ছাড়িয়ে শুধু মেধা ও পরিশ্রমের জোরেই তিনি চিরাচরিত গণ্ডির বাইরে যেতে পেরেছিল। রূপবতী ও শিক্ষিত বউ পেলেও দারিদ্রের কাছে পরিবারের মায়া মহব্বত বিলুপ্ত হয়ে গেছে। রক্তের সম্পর্কে এমন কাটাকাটি খুব ভোগায় প্রকৃতিপ্রেমী ড. কৃষ্ণজীবন বিশ্বাসকে যা বইয়ে সুন্দরভাবে ফুটিয়ে তোলা হয়েছে।

বইয়ের নাম: পার্থিব
লেখক: শীর্ষেন্দু মুখোপাধ্যায়
ভাষা: বাংলা

থিংকিং ফাস্ট অ্যান্ড স্লো–ড্যানিয়েল কাহনমান

বইটির মাধ্যমে কাহনেম্যান অত্যন্ত প্রত্যাশিত চিন্তাভাবনা, দ্রুত এবং ধীরগতিতে আমাদের মনকে একটি যুগান্তকারী সফরে নিয়ে যান এবং দুটি সিস্টেম ব্যাখ্যা করেন যা আমাদের চিন্তাভাবনাকে চালিত করে। সিস্টেম-১ দ্রুত, স্বজ্ঞাত এবং আবেগপূর্ণ; সিস্টেম-২ ধীর, আরো ইচ্ছাকৃত, এবং আরো যৌক্তিক। কাহনেম্যান দ্রুত চিন্তাভাবনার অসাধারণ ক্ষমতাগুলি-এবং ত্রুটি এবং পক্ষপাতগুলিও উন্মোচন করেন এবং আমাদের চিন্তাভাবনা এবং আচরণের উপর স্বজ্ঞাত প্রভাবের ব্যাপক প্রভাব প্রকাশ করেন।

বইয়ের নাম: থিংকিং ফাস্ট অ্যান্ড স্লো
লেখক: ড্যানিয়েল কাহনমান
ভাষা: বাংলা

ছাড়পত্র – সুকান্ত ভট্টাচার্য

খুব আগ্রহ ছিলনা তবুও বইটা খুলে প্রথম কবিতা “ছাড়পত্র” পড়া শুরু করলাম। প্রথম কবিতা পড়েই কিছুটা ঝাঁঝ টের পাওয়া গেল। বইয়ের প্রত্যেকটা কবিতা যেন আগুনের পিন্ড হবে। এই বইটির মধ্যে থাকা কবিতা গুলোর গভীরতা বুঝতে না পারলেও নিজের মধ্যে একরকম সাহস অনুভব করবেন, পুরো ব্যাপারটা আপনার কাছে যাদুর মতো মনে হবে।

বইয়ের নাম: ছাড়পত্র
লেখক: সুকান্ত ভট্টাচার্য
ভাষা: বাংলা

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button